ভারতের মুম্বাইয়ে বস্তির অর্ধেকই করোনায় আক্রান্ত: জরিপ

প্রকাশিত : ২৯ জুলাই ২০২০

ভারতের করোনাভাইরাস ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়েছে। প্রথম দিনে সে দেশের বস্তিতে তেমন সংক্রমণ না ছড়ালেও এখন বস্তিতেও ছড়াচ্ছে করোনাভাইরাস।
এদিকে ভারতের মুম্বাই শহরের বস্তিবাসীদের অর্ধেকের মাঝেই করোনাভাইরাসের সংক্রমণ পাওয়া গেছে বলে মুম্বাই সিটি কমিশন পরিচালিত এক জরিপে দেখা গেছে। এতে এই নগরীসহ দেশজুড়ে আক্রান্তের যে সংখ্যা সরকারি হিসেবে বলা হচ্ছে তা নিয়ে সন্দেহ তৈরি হয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি।

করোনায় আক্রান্তে বৈশ্বিক তালিকায় তৃতীয়স্থানে আছে ভারত। দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা এরই মধ্যে ১৫ লাখ ৩২ হাজার ছাড়িয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রাজিলের পরেই তাদের অবস্থান। মৃত্যুর বৈশ্বিক তালিকায় ষষ্ঠস্থানে আছে ভারত, ৩৩ হাজার ৪০০ ছাড়িয়েছে।

আগে থেকেই বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ভারতে টেস্টের সংখ্যা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই কম টেস্ট হচ্ছে। টেস্ট বাড়ানো হলে শনাক্তের প্রকৃত সংখ্যা অনেক বেশি হয়ে থাকতে পারে।

মহারাষ্ট্রের রাজধানী মুম্বাইয়ে চালানো জরিপের ফল বিশেষজ্ঞদের সেই ধারণাই জোরালো করল।

জরিপের ফলে বলা হয়েছে, মুম্বাই শহরে অনির্দিষ্টভাবে বাছাই করা ৬ হাজার ৯৩৬ জনের রক্তের নমুনা নিয়ে কভিড-১৯ টেস্ট করা হয়। তাতে ৫৭ শতাংশ বস্তিবাসীর শরীরে সংক্রমণ পাওয়া গেছে। আর বস্তিবাসীদের বাইরের অধিবাসীদের মধ্যে ১৬ শতাংশ মানুষের শরীরে করোনার লক্ষণ পাওয়া গেছে।

ভারতের অন্যতম জনবসতিপূর্ণ শহর মুম্বাইয়ের ৪০ শতাংশ মানুষের বসবাস বস্তিতে। ২ কোটি মানুষের শহরটিতে এখন পর্যন্ত সরকারি হিসেবে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ১০ হাজার। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৬ হাজারের বেশি মানুষের।

ভারতের বৃহত্তম ধারাভি বস্তিটির অবস্থান এই মুম্বাইয়ে। সেখানে আনুমানিক ১০ লাখ মানুষের বসবাস। তবে সেখানে করোনায় মৃত্যুর খবর খুব একটা পাওয়া যায়নি। স্থানীয় কর্তৃপক্ষর দাবি, সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে তাদের নেওয়া কঠোর পদক্ষেপগুলো কাজে দিয়েছে।

এর আগে ভারতের রাজধানী নয়া দিল্লির প্রায় এক-চতুর্থাংশ মানুষই করোনাভাইরাসে সংক্রমিত বলে একটি জরিপের ফলে উঠে আসে।

আপনার মতামত লিখুন :