মধ্যনগরে দলবেঁধে ধর্ষণের শিকার এক নারী

প্রকাশিত : ১ এপ্রিল ২০২১

কলমাকান্দা (নেত্রকোণা) প্রতিনিধিঃ

 

সুনামগঞ্জ জেলার মধ্যনগর থানার বংশীকুন্ডা (দঃ) ইউনিয়নের আদর্শগ্রামে এক মহিলা ধর্ষণের শিকার হয়েছে।

ধর্ষণের শিকার ঐ নারী জানান,গত রোববার সন্ধ্যার দিকে ছেলের বউয়ের জন্য বাট্টা গ্রামের মোহন বিশ্বাসের ছেলে কবিরাজ দীনবন্ধুর কাছ থেকে তাবিজ আনতে যান ঐ নারী।

বাড়িতে ফেরার পথে দক্ষিণউড়া গ্রামের সামনে থেকে জোরপূর্বকভাবে ঐ নারীকে কয়েকজন মিলে ধরে নিয়ে যায়। দক্ষিণউড়া গ্রামের রগুরবিদাসের বাড়ি সংলগ্ন পুকুরের একটি ঘরে জোরপূর্বক মদ পান করিয়ে দলবেঁধে ঐ নারীকে ধর্ষণ করে করে রংচী গ্রামের আব্দুল হকের ছেলে আসসাদ মিয়া(৩৫), বংশীকুন্ডা গ্রামের আব্দুল খালেকের ছেলে আজাদ মিয়া (৫০), বংশীকুন্ডা গ্রামের সাহেব আলীর ছেলে ইউনূছ আলী (৩৫), বংশীকুন্ডা গ্রামের লালু মিয়ার ছেলে রফিকুল ইসলাম (৩৬), নিশ্চিন্তপুর গ্রামের জুনাব আলীর ছেলে শাহ আলম (৩১) সহ অজ্ঞাত আরোও কয়েকজন।

 

পরে রাত তিনটার দিকে ধর্ষণের পর ঐ নারীকে ধর্ষক ইউনূছ আলী ও রফিকুল ইসলাম কান্দার মধ্যে ফেলে রেখে যায়।

এই নারকীয় ঘটনার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চান ধর্ষণের শিকার ঐ নারী।

 

মধ্যনগর থানার ওসি নির্মল চন্দ্র দেব জানান,অভিযোগ পেলেই আসামীদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা করা হবে।

আপনার মতামত লিখুন :