সুন্দরগঞ্জে ধর্ষকের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন

প্রকাশিত : ৩০ জুন ২০২০

সুন্দরগঞ্জ(গাইবান্ধা) প্রতিনিধি : গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় গৃহকর্মী ও আপন চাচাতো ভাতিজিকে ধর্ষণকারী গাইবান্ধা সরকারী বালক উচ্চ বিদ্যালয়ের ইংরেজি শিক্ষক ইউনুস আলীকে দ্রæত গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবিতে মানববন্ধন করেছে ভুক্তভোগী পরিবার ও সচেতন এলাকাবাসী। মঙ্গলবার সকালে পৌর শহরের কাঁঠালতলী মোড়ে এই মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন নদী বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের নেতা ছাদেকুল ইসলাম দুলাল, আওয়ামী লীগ নেতা এটিএম মাসুদ-উল ইসলাম চ ল, বাসদ (মার্কসবাদী) উপজেলা আহŸায়ক বীরেন চন্দ্র শীল, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের জেলা সংগঠক শামীম আরা মিনা, নির্যাতিতার বাবা, মা, শিক্ষানবিশ আইনজীবী রুমন বসুনিয়া প্রমূখ। বক্তারা অবিলম্বে তদন্ত সাপেক্ষে ধর্ষণকারী শিক্ষক ইউনুস আলীকে গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি এবং বিদ্যালয় থেকে বহিষ্কারের দাবি জানান।
উল্লেখ্য, গৃহকর্মীকে পড়াশোনা করাসহ বিয়ে দেয়ার কথা বলে গাইবান্ধা জেলা শহরের বাসায় নিয়ে গিয়ে সুন্দরগঞ্জ উপজেলার এক কিশোরীকে (১৫) ধর্ষণের অভিযোগে শিক্ষক মো. ইউনুস আলীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে কিশোরীর দাদী। শিক্ষক ইউনুস আলী সুন্দরগঞ্জের তারাপুর ইউনিয়নের নওহাটী চাচীয়া গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে। ধর্ষিতা ওই কিশোরী শিক্ষক ইউনুস আলীর আপন চাচাতো ভাইয়ের মেয়ে। করোনা ভাইরাসের কারণে মার্চ মাসের মাঝামাঝি শিক্ষা

আপনার মতামত লিখুন :