নন্দীগ্রামে পুকুর গিলছে গ্রামীণ সড়ক

প্রকাশিত : ২৫ জুন ২০২০

নন্দীগ্রাম (বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার নন্দীগ্রাম উপজেলার পল্লীতে জনগুরুত্বপূর্ণ সড়কটি ধসে পড়ায় স্থানীয়দের ঝুঁকি নিয়ে যাতায়াত করতে হচ্ছে। দ্রæত সড়কটি সংস্কারের দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা। স্থানীয়রা জানায়, নন্দীগ্রাম উপজেলার থালতা মাজগ্রাম ইউনিয়নের নিমাইদিঘী মধ্যপাড়ার সড়ক দিয়ে মালবাহী ট্রাক ও অটোভ্যানসহ বিভিন্ন যানবাহন চলাচল করে। যাতায়াত করছে এলাকার কয়েক গ্রামের কয়েক হাজার মানুষ। সড়ক ঘেঁষে পুকুর দেওয়া হয়েছে। পুকুরের অবস্থানও একেবারে সড়কের সঙ্গে। ভারি বৃষ্টির ফলে সড়কের এক পাশ ভেঙে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে।
সড়কটি নিমাইদিঘী-সাড়াদেঘর এলাকাবাসীর জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। বর্ষা মৌসুমে এ সড়কে যাতায়াত করতে গিয়ে অবর্ণনীয় কষ্ট করতে হয় এলাকাবাসীর। সড়কটি ধসে পড়ায় ঝুঁকি নিয়েই যাতায়ত করছে লোকজনের। বর্ষা মৌসুমে পুকুরের পানি ফুলে ফেপে উঠে রাস্তা ভেঙ্গে পুকুরে নামছে। এভাবে ভাঙতে থাকলে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাবে।
পথচারী সিরাজুল ইসলাম বলেন, এই সড়কটি পুকুরে মিশে যেতে বসেছে। পুকুরের গাইড ওয়াল না দেয়ার কারণে যে কোন সময়ে চলাচল বন্ধ হয়ে যেতে পারে। তাই আশা করছি সড়কটি সচল রাখার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।
এ বিষয়ে থালতা মাজগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন বলেন, সড়ক ঘেঁষে পুকুর খনন করায় সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে। তবে সড়কটি পাকা করা হবে। সে সময় গাইডওয়াল নির্মাণ করা হবে। জানতে চাইলে উপজেলা প্রকৌশলী শা-রিদ শাহনেওয়াজ বলেন, সড়ক ধসে পড়ার জন্য কেউ দায়ী হলে তাঁর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আপনার মতামত লিখুন :