টাঙ্গাইলে শিক্ষার্থীকে হত্যার প্রতিবাদ ও জড়িতদের গ্রেপ্তার দাবি

প্রকাশিত : ২৩ জুন ২০২২
নিহতের পরিবারের দাবি শিক্ষার্থীকে হত্যা করা হয়েছে।

ভোরের দর্পণ ডেস্কঃ

টাঙ্গাইলে সৃষ্টি স্কুলের আবাসিকে শিশু শিক্ষার্থীকে হত্যার প্রতিবাদ ও জড়িতদের গ্রেপ্তারের দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

আজ বৃহস্পতিবার (২৩ জুন) দুপুরে টাঙ্গাইল প্রেস ক্লাবের সামনে সাধারণ শিক্ষার্থীদের ব্যানারে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। শিক্ষার্থীরা খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে শহরের বিভিন্ন পয়েন্ট ঘুরে প্রেস ক্লাবের সামনে গিয়ে সমবেত হন। এসময় তারা পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র শিহাব মিয়াকে পাশবিক নির্যাতন করে হত্যার অভিযোগ এনে জড়িতদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও তাদের কঠোর শাস্তির দাবি সম্বলিত শ্লোগান দেন।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন- মৃত শিহাব মিয়ার বাবা ইলিয়াস হোসেন, মা আসমা বেগম, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস হোসাইন, সৃষ্টি স্কুলের শিক্ষার্থী আশা আক্তার, শিক্ষার্থী অর্পিতা, সুমাইয়া আক্তার, ওয়ালিব ভূঁইয়া, মেহেদী হাসান, ফারহান নিঝুম, রাকিবুল হাসান, রাকাত হোসেন, তাহসিন হাসান, মো. হিমু প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, ‘পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র শিহাব মিয়াকে পাশবিক নির্যাতন করে হত্যা করা হয়েছে। এটা পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড। এত ছোট শিশু আত্মহত্যা করতে পারে না। তিনি হয় স্কুলের কোনো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় দেখেছিল। এজন্য তাকে হত্যা করা হয়েছে। আমরা সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে জড়িতদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।’

প্রসঙ্গত, গত ২০ জুন সন্ধ্যায় টাঙ্গাইল শহরের বিশ্বাস বেতকা সুপারি বাগান এলাকায় সৃষ্টি স্কুলের আবাসিক ভবন থেকে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র শিহাব মিয়ার লাশ টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান ভবনে দায়িত্বরত শিক্ষকরা। মৃত শিহাব মিয়া (১১) জেলার সখিপুর উপজেলার বেরবাড়ি গ্রামের প্রবাসী ইলিয়াস হোসেনের ছেলে। ওইদিন শিশুটিকে হত্যার অভিযোগ আনে তার পরিবার। পরে লাশ ময়নাতদন্ত শেষে পারিবারের কাছে হস্তান্তর করে পুলিশ। এ ঘটনায় প্রাথমিক পর্যায়ে টাঙ্গাইল সদর থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :