সীতাকুণ্ডে মডেল মসজিদ নির্মাণ কাজের ফলক ভেঙ্গে দিয়েছে দুষ্কৃতিকারীরা

প্রকাশিত : ২৬ জুন ২০২০

সীতাকুন্ড প্রতিনিধি : উদ্বোধনের দুই দিনের মাথায় সীতাকুণ্ডে মডেল মসজিদ নির্মাণ কাজের উদ্বোধনের ফলক ভেঙ্গে দিয়েছে দুষ্কৃতিকারীরা। গতকাল রাতে কে বা কারা মসজিদের ফলকটি ভেঙে গুড়িয়ে দেয়।

গত ২৩ জুন মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার মুরাদপুর ইউনিয়নের ফকিরহাট এলাকায় সাদেক মস্তান(রাঃ) উচ্চ বিদ্যালয়ের বিপরীত পাশে দৃষ্টিনন্দন এই মডেল মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন করেন স্থানীয় সাংসদ দিদারুল আলম। এ ঘটনায় তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেন সাংসদ দিদারুল আলম।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মিল্টন রায় জানান, রাতের আঁধারে মসজিদের উদ্বোধন ফলক ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেওয়ার ঘটনাটি অত্যন্ত ন্যাক্কারজনক। এ ঘটনাটি শুনে আমি মর্মাহত হয়েছি। ঘটনায় জড়িতদের চিহিৃত করে আইনি ব্যবস্থা নিতে পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সীতাকুণ্ড মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফিরোজ হোসেন মোল্লা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মডেল মসজিদ নির্মাণ কাজে দুষ্কৃতিকারীর হামলার খবর পেয়ে আমি ঘটনাস্থলে এস আই মামুনকে পাঠালে দুষ্কৃতিকারীরা পালিয়ে যায়। কিন্তু ঘন্টাখানেক পর মামুন চলে গেলে দুষ্কৃতিকারীরা পুণরায় এসে উদ্বোধন ফলক ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়।

এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতির পাশাপাশি জড়িতদের চিহিৃত করে সহসাই আইনি ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। মসজিদ ভিত্তিক সমাজের ঐতিহাসিক গুরুত্ব বিবেচনায় নিয়ে ইসলামী মূল্যবোধের প্রসার ও ইসলামী সংস্কৃতি বিকাশের উদ্দেশ্যে প্রতিটি জেলা ও উপজেলায় একটি করে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। তারই অংশ হিসেবে সীতাকুণ্ডও গড়ে উঠছে মডেল মসজিদ।

বুধবার (২৩) বিকালে উপজেলার ফকিরহাট এলাকায় মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের ভিত্তি প্রস্থর স্থাপন করেন সংসদ সদস্য আলহাজ্ব দিদারুল আলম। এদিকে উদ্বোধনের দু’দিন পর মসজিদের ভিত্তি প্রস্তর ভেঙে দেওয়ার ঘটনায় সীতাকুণ্ড উপজেলায় মানুষের মাঝে তীব্র সমলোচনা সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়াও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ ন্যাক্কারজনক ঘটনার নিন্দা জানিয়ে বিভিন্ন রকমের মন্তব্য করছেন।

আপনার মতামত লিখুন :