চাকরিপ্রার্থীরা বয়সে ছাড় পাচ্ছেন

প্রকাশিত : ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

ভোরের দর্পণ অনলাইন:

করোনা মহামারীর মধ্যে গত ২৫ মার্চ যেসব চাকরিপ্রার্থীর বয়স ৩০ বছর পূর্ণ হয়েছে তাদের সরকারি চাকরিতে আবেদনের সুযোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে সরকারি চাকরি প্রত্যাশীদের এই সুযোগ দেওয়া হচ্ছে বলে গতকাল সাংবাদিকদের জানিয়েছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা গতকাল আমাদের সময়কে বলেন, মন্ত্রণালয় থেকে এ সংক্রান্ত সারসংক্ষেপ প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনের জন্য পাঠানো হয়েছে। তিনি অনুমোদন করলেই দুএকদিনের মধ্যেই সার্কুলার জারি হবে। গত ৩০ মার্চ যাদের বয়স পূর্ণ হয়েছে তাদের জন্য ৫ মাস সময় বাড়ানো হচ্ছে। আজ বুধবার সার্কুলার জারি হতে পারে বলেও আভাস দেন ওই কর্মকর্তা। এর আগে সাধারণ ছুটি চলার মধ্যে গত ২৪ জুন ফরহাদ গণমাধ্যমকে বলেছিলেন, করোনা ভাইরাস মহামারীর মধ্যে যাদের সরকারি চাকরির বয়স পার হয়েছে, তাদের বিষয়টি বিবেচনা করতে প্রধানমন্ত্রীর কাছে প্রস্তাব পাঠাবে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।

জনপ্রশাসনের কর্মকর্তারা জানান, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। গত ২৫ মার্চ যাদের বয়স ৩০ বছর পূর্ণ হয়েছে তাদের সরকারি চাকরিতে আবেদন করার সুযোগ দেওয়ার কথা বলেছেন প্রধানমন্ত্রী। এ বিষয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সার্কুলারের মাধ্যমে বয়স নির্ধারণ করে দেবে।

বাংলাদেশে কোভিড-১৯ এর বিস্তার বাড়তে থাকায় গত ২৬ মার্চ থেকে টানা ৬৬ দিন সাধারণ ছুটির মধ্যে কোনো নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেনি সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)। তার আগে গত ডিসেম্বর থেকে চাকরিতে নিয়োগের নতুন কোনো বিজ্ঞপ্তি পায়নি চাকরিপ্রার্থীরা। তবে ৩০ মে সাধারণ ছুটি শেষে জুনের প্রথম সপ্তাহে নন-ক্যাডারে বেশ কয়েকটি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে পিএসসি। সেখানে বয়সের সর্বোচ্চ সীমা ৩০ বছর নির্ধারণ করে দেওয়া হয়েছে গত ১ জুন পর্যন্ত।

আপনার মতামত লিখুন :