চট্টগ্রামে নতুন ১ জনসহ মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭, আক্রান্ত রোগী ৮৬

প্রকাশিত : ৪ মে ২০২০

চট্টগ্রাম ব্যাুরো : প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে চট্টগ্রাম জেলায় আরো এক জনের মৃত্যুর খবর জানা গেছে গতকাল রবিবার। গত ৩০ এপ্রিল তিনি মারা যান। এ নিয়ে চট্টগ্রামে করোনায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ৭ জনে। করোনায় মৃত্যু নতুন ব্যাক্তিটি হলেন, চট্টগ্রাম নগরীর চান্দগাঁও থানাধীন মোহরার বাসিন্দা।

মৃত ব্যাক্তির পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, মৃত্যুর চারদিন আগে গত ২৬ এপ্রিল তিনি অসুস্থ হয়ে পড়লে পরদিন তাকে চট্টগ্রামের ফৌজদারহাটের বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেজে (বিআইটিআইডি) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

গত ২৮ এপ্রিল তার করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ করা হলেও মৃত্যুর আরো ২ দিন পর গতকাল রবিবার (৩ মে) তার ফলাফল পজেটিভ আসে। তবে এর আগে গত ৩০ এপ্রিল তিনি মারা যান। ১ মে গাউসিয়া কমিটির সদস্যরা পিপিই পরিধান করে নুরুল আবছারের দাফন সম্পন্ন করেন এমনটাই জানিয়েছেন মৃত আবছারের পরিবার।

সর্বশেষ রোববার রাতে (৩ মে) বিআইটিআইডি ল্যাবে ১৮৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে নতুন করে চট্টগ্রামের ৫ জনের দেহে করোনাভাইরাস পাওয়া যায়। নতুন করে শনাক্ত চট্টগ্রামের ৫ জনের মধ্যে একজন ৫৫ বছর বয়সী মোহরায় মৃত আবছার চৌধুরী। তাছাড়া একজন ৩৮ বছর বয়সী দামপাড়া পুলিশ লাইন্সের পুরুষ পুলিশ সদস্য, সাতকানিয়ার পশ্চিম ঢেমশার সিটুয়াপাড়ার ৪৫ বছর বয়সী এক পুরুষ, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ৩৫ বছর বয়সী করোনা সনাক্ত ব্যাক্তিটি নগরীর পাহাড়তলীর বাসিন্দা।

এছাড়া বিআইটিআইডিতে পরীক্ষার জন্য নমুনা জমা দেওয়া ৬২ বছর বয়সী আরেক পুরুষ সদস্যের করোনা পজেটিভ আসে। তবে তার যোগাযোগের জন্য সংরক্ষিত মোবাইল ফোনটি বন্ধ থাকায় তার বিস্তারিত জানা যায়নি। তার সঙ্গে যোগাযোগ করা যাচ্ছে না বলে জানান সিভিল সার্জন।

চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বি বলেন, বিআইটিআইডি ল্যাবে নমুন সংগ্রহ করা নমুনা পরীক্ষার ফলাফলে রবিবার পজিটিভ আসা চট্টগ্রামের ৫ জনের মধ্যে ৫৫ বছর বয়সী এক ব্যক্তি অন্তত দুইদিন আগে মারা গেছেন। মৃত্যুর পর নমুনা পরীক্ষায় তার করোনা পজিটিভ রিপোর্ট পাওয়া গেছে। তবে ঠিকানা হিসেবে দামপাড়া পুলিশ লাইন্সের কথা উল্লেখ থাকলেও তিনি পুলিশ সদস্য নন।

চট্টগ্রামে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা সর্বমোট ৮৬ জনে দাঁড়ালো। চট্টগ্রামের স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্য অনুযায়ী, গত ৩৮ দিনে চট্টগ্রামে মোট ৮১ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে।এছাড়া ঢাকা, কুমিল্লা, কক্সবাজার ও রাজবাড়ীতে করানো শনাক্ত হয়ে চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতাল ও ফিল্ড হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন আরো পাঁচ ব্যক্তি।

চট্টগ্রামে আক্রান্তের মধ্যে নগরের ৫৪ জন, সাতকানিয়ার ১৬ জন, লোহাগাড়ার একজন সীতাকুণ্ডের ৩ জন, বোয়ালখালীর ২ জন, পটিয়ার ২ জন, আনোয়ারার ১ জন, চন্দনাইশের ২ জন, সন্দ্বীপের ১ জন, রাঙ্গুনিয়ার ১ জন, ফটিকছড়ির ১ জন ও মিরসরাইয়ের ২ জন রয়েছেন।চট্টগ্রামে এখন পর্যন্ত ৬ বছরের এক শিশু, তিন বয়স্ক পুরুষ ও দুই নারীসহ মোট সাতজন করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

এছাড়াও ৬ জন মারা গেছে আইসোলেশনে। তবে মৃত্যুর পর তাদের পাঁচজনের নমুনা পরীক্ষায় করোনা নেগেটিভ পাওয়া যায়। আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন ৬১ জন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন ২২ জন।

আপনার মতামত লিখুন :