হেফাজতের তাণ্ডবে সেই গুলিবিদ্ধ যুবক গ্রেফতার

প্রকাশিত : ৮ মে ২০২১

ভোরের দর্পণ ডেস্ক:

গত ২৮ মার্চ হেফাজতের হরতাল চলাকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিশ্বরোড এলাকায় পুলিশের সাঁজোয়া কর্মীবাহী (এপিসি) গাড়িতে পেট্রল দিয়ে অগ্নিসংযোগের মূল হোতা জাকারিয়া আহমেদ প্রীতম (২৮) নামে যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

শনিবার (০৮ মে) বিকেলে গাজীপুর সদর থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। প্রীতম সরাইল উপজেলার নোয়াগাঁও গ্রামের বাসিন্দা।

পুলিশের পক্ষ থেকে গণমাধ্যমে পাঠানো বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গ্রেফতার হওয়া জাকারিয়া আহমেদ প্রীতম পুলিশের সাঁজোয়া কর্মী বাহক এপিসিতে অগ্নিসংযোগ করে। পরবর্তীতে পুলিশের গুলিতে সে আহত হয়। সে ঘটনার পর থেকে গাজীপুরে আত্মগোপনে থেকে ভাড়া বাসায় চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। এপিসি পোড়ানোর ভিডিও ফুটেজ দেখে তাকে সনাক্ত করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে বিশ্বরোড এলাকায় ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ ও সহিংসতার সাথে নিজের সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করেছে প্রীতম।

উল্লেখ্য, গত ২৬ থেকে ২৮ মার্চ পর্যন্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ব্যাপক তাণ্ডব চালায় হেফাজতে ইসলামের নেতাকর্মীরা। তারা ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরসহ আশপাশের এলাকায় সরকারি ও বেসরকারি প্রায় অর্ধশতাধিক স্থাপনা ব্যাপক ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগ করেন। পরে তাণ্ডবের ঘটনায় জেলার বিভিন্ন থানায় মোট ৫৬টি মামলা হয়েছে। এর মধ্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানায় ৪৯টি, আশুগঞ্জ থানায় ৪টি, সরাইল থানায় ২টি এবং আখাউড়া রেলওয়ে থানায় ১টি। ৫৬টি মামলায় এজাহারনামীয় ৪১৪ জনসহ অজ্ঞাতনামা ৩৫ হাজার লোককে আসামি করা হয়েছে।এসব মামলায় মোট ৪৪৮ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

আপনার মতামত লিখুন :