নগরবাসীকে বাইসাইকেল ব্যবহার করার আহবান মেয়র অতিকুলের

প্রকাশিত : ২৪ জুন ২০২০

অনলাইন ডেস্ক: ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম ভবিষ্যত প্রজন্মকে সুন্দর ঢাকা উপহার দিতে নগরবাসীকে বাইসাইকেল ব্যবহার করার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, আগে আমরা মনে করতাম বাইসাইকেল গরিবের বাহন, এটা গরিবের বাহন নয়, উন্নত বিশ্বের অনেক রাষ্ট্রনায়কও বাইসাইকেল ব্যবহার করেন। সারাবিশ্বে এ বাহন অত্যন্ত জনপ্রিয়। তাই পরিবেশ ও নিরাপদ ঢাকা গড়তে বাইসাইকেল ব্যবহারে উৎসাহ দিতে হবে। আজ বুধবার (২৪ জুন) দুপুর সোয়া ১২টায় রাজধানীর গুলশান-২ এর বাইসাইকেল রাইড শেয়ারিং সেবা জোবাইক সার্ভিসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ডিএনসিসির মেয়র এ আহ্বান জানান।

আতিকুল ইসলাম বলেন, শৃঙ্খলা মেনে বাইসাইকেল চালাতে হবে। কেউ নির্ধারিত ম্যাপের বাইরে মেইন সড়কে গিয়ে বাইসাইকেল চালালে তিনগুণ ভাড়া নেওয়া হয়, সেই ব্যবস্থাও থাকবে। সু-শৃঙ্খলভাবে বাইসাইকেল চালাতে হবে। তিনি বলেন, মাত্র ১৪ দিন আগে এ সেবা চালুর উদ্যাগে নেই। অল্প দিনেই আমরা এ সেবা চালু করছি। এটা পাইলট প্রকল্প। এ প্রকল্প সফল হলে পুরো ঢাকায় এ সেবা চালু করা হবে।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, মহামারি করোনা মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে লড়াই চলছে। এজন্য সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। তিনি বলেন, শেখ রেহানা পুত্র রেদওয়ান ববি ঢাকায় এ সেবার স্বপ্নদ্রষ্টা। তিনি উদ্যাগে নেওয়ার পরই আমরা কাজ শুরু করি। অল্প সময়ের মধ্যেই এ সেবা চালু করা সম্ভব হয়েছে। এ শহর যাতে বাইসাইকেল বান্ধব হয়, সেজন্য সব ধরনের উদ্যাগে নেওয়া হবে। তিনি বলেন, এটা পাইলট প্রকল্প। এ প্রকল্প সফল হলে আলাদা বাইসাইকেল লেন করা হবে। স্বাস্থ্যকর নিরাপদ ও সাশ্রয়ী হবে এ সেবা। প্রযুক্তি নির্ভর সেবা মানুষকে দিতে চাই।

ডিএমপির কমিশনার মোহাম্মদ শফিকুল ইসলাম বলেন, সারাদেশে বাইসাইকেল অত্যন্ত জনপ্রিয় ও নিরাপদ বাহন। পুরো ঢাকা শহরে যদি এ সেবা চালু করা যায়, তাহলে যাতায়াতে ভোগান্তি কমবে। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জোবাইকের বোর্ড অব ডিরেক্টর শামীম আহসান, চেয়ারম্যান সাজিদ রহমান, কো-ফাউন্ডার ও সিইও মেহেদী রেজা ও স্থপতি ইকবাল হাবিব প্রমুখ।

সংশ্লিষ্টরা জানান, এ সেবা উদ্বোধনের ফলে যে কেউ গুগল প্লে থেকে জোবাইক অ্যাপস ডাউনলোড করে নির্ধারিত স্ট্যান্ড থেকে গুলশান ও বনানী এলাকায় বাইসাইকেল রাইড নিতে পারবে। এজন্য প্রতি মিনিট এক টাকা ভাড়া গুনতে হবে। সেবাগ্রহীতাকে অ্যাপস ডাউন করলে নির্দিষ্ট নম্বরে রিচার্জ করে বাইসাইকেল রাইড নিতে পারবে। এছাড়া ২২টি স্পট থেকে বাইসাইকেল নিতে পারবেন সেবাগ্রহীতারা।

আপনার মতামত লিখুন :